প্রতিদিন পথে পথে ইফতার বিতরণ করছে “নবজাগরণ সামাজিক ও স্বেচ্ছাসেবী যুব সংগঠন”

সিলেট বিডি নিউজ
প্রকাশিত ৩, মে, ২০২১, সোমবার
প্রতিদিন পথে পথে ইফতার বিতরণ করছে “নবজাগরণ সামাজিক ও স্বেচ্ছাসেবী যুব সংগঠন”

নাজমুল ইসলাম হৃদয়ঃ বাহুবল উপজেলায় প্রতিদিন সুবিধাবঞ্চিতদের মাঝে ইফতার বিতরণ কার্যক্রমের আয়োজন করেছে সামাজিক সংগঠন “নবজাগরণ সামাজিক ও স্চ্ছোসেবী যুব সংগঠন” ।

প্রতিদিন ইফতারের প্যাকেট নিয়ে বিভিন্ন পথে হাজির হচ্ছেন সংগঠনটির সেচ্ছাসেবকরা। করোনার দুঃসময়ে ইফতার প্যাকেট পেয়ে খুশি সামর্থ্যহীন রোজাদাররা।

দফায় দফায় বিধিনিষেধ আর করোনা মহামারীতে নাভিশ্বাস উঠেছে নিম্ন আয়ের মানুষের। তার ওপর রোজার বাজারের প্রভাব। এমন দুঃসময়ে যেখানে বেঁচে থাকাই সংগ্রাম, সেখানে নানা পদের ইফতার সে তো কল্পনা মাত্র। এমন বাস্তবতায় বাহুবল উপজেলার বিভিন্ন বাজারে প্রতিদিন পথে পথে ইফতার বিতরণ করছে “নবজাগরণ সামাজিক ও স্চ্ছোসেবী যুব সংগঠন” ।
প্রতিদিনের মতো পঞ্চম দিনের কার্যক্রম ( ২ মে) রবিবার বিকাল ৪ ঘটিকায় বাহুবল উপজেলার মিরপুর চৌমুহনী, তিতারকোনা, বিশ্বরোড পয়েন্ট সহ আশেপাশের এলাকার পথশিশু, এতিম, দরিদ্র শিশু ও মহিলা, পথচারী, ও নিম্নবিত্ত মানুষের হাতে পৌছিয়ে দিয়েছে “নবজাগরণ সামাজিক ও স্চ্ছোসেবী যুব সংগঠন”।
ইফতার সামগ্রী বিতরণের সময় সংগঠনের পক্ষে অনেকে উপস্থিত থেকে ইফতার সামগ্রী বিতরণে সহযোগী করেন।
স্থানীয়রা বলেন, রোজার মাস, আমাদের কোন কাজ নাই। ছেলেরা ইফতার দিচ্ছে এতে অনেক ভালো লাগছে।
মানবতার পাশে, মানবতার টানে, সর্বদা আমরা নবজাগরণে, এই শ্লোগানে ১৫ রমজান থেকেই উপজেলার বিভিন্ন বাজারের পথে পথে ইফতার বিতরণ করছে সংগঠনটি।
নিজেদের অর্থায়নে দুঃস্থদের মুখে হাসি ফোটাতে এমন উদ্যোগ উল্লেখ করে সংগঠনটির সেচ্ছাসেবকরা বলেন, দরিদ্র মানুষকে ইফতার দেয়াই তাদের মূল উদ্দেশ্য। নিজেদের টাকা, পাশাপাশি বিভিন্নজনের থেকে টাকা নিয়ে তারা মানুষকে সহায়তা করার চেষ্টা করছেন।
জানা যায়, বাহুবল উপজেলার “নবজাগরণ সামাজিক ও স্চ্ছোসেবী যুব সংগঠন” নামে একটি সামাজিক সংগঠন দীর্ঘদিন ধরে অসহায় ও দুস্থদের জন্য কাজ করে আসছে তারা। এরই ধারাবাহিকতায় পথচারী ও দুস্থদের কথা চিন্তা করে ২৮ এপ্রিল বুধবার বিকালে বাহুবল উপজেলার বিভিন্ন স্থানে ইফতার সামগ্রী বিতরণের মাধ্যমে এ কার্যক্রম শুরু করেছেন। বিভিন্ন শ্রেণির পেশার মানুষ যেমন, রিকশাওয়ালা, ভ্যানচালক যাদের বেশিরভাগ সময় রাস্তায় কাটে তারা এখান থেকে ইফতার সংগ্রহ করেন ।
করোনায় দুস্থ ও অসহায় রোযাদার ব্যক্তির মুখে খাবার তুলে দিতে এগিয়ে এসেছে বাহুবলে সামাজিক সংগঠন নবজাগরণ সামাজিক ও স্চ্ছোসেবী যুব সংগঠন। এ লক্ষ্যে প্রতিদিন মিরপুর সানশাইন মডেল হাই স্কুল মাঠে জড়ো হন সংগঠনের কর্মীরা। সেখানেই চলে ইফতার তৈরির আয়োজন।প্রতিদিন সাড়ে ১০০ থেকে ১৫০ প্যাকেট খাবার তৈরি করে তা পৌঁছে দিচ্ছেন ক্ষুধার্ত মানুষের হাতে। আর এ কাজেই আনন্দ খুঁজে নিয়েছেন নবজাগরণ সামাজিক ও স্চ্ছোসেবী যুব সংগঠন এর কর্মীরা।প্রাকৃতিক নানা দুর্যোগে উপজেলার নিম্ন আয়ের মানুষের পাশে দাঁড়ানোই সংগঠনের মূল উদ্দেশ্য। মানবসেবায় এ ধরনের কল্যাণকর কাজে আরও অংশগ্রহণ বাড়ানোর আশা সংগঠনের সকল কর্মীদের ।
নবজাগরণ সামাজিক ও স্চ্ছোসেবী যুব সংগঠন এর প্রতিষ্ঠাতা ও সাধারণ সম্পাদক অলিউর রহমান এমরান বলেন, রমজানের অন্যতম আমল দান-সদকা করা, গরীব দুঃখী অসহায় মানুষের প্রতি সাহায্যের হাত বাড়িয়ে দেওয়া। কিন্তু এখন সমাজের অনেকেই ব্যাস্ত হরেক রকম বাজার সদাই করা নিয়ে, কেউ ইফতার পার্টি করা নিয়ে। রোজা ফরজ করা হয়েছে মানুষের কল্যাণের জন্য, এ কল্যাণ তখনই অর্জিত হবে যখন রোজাদার দুস্থ-অসহায় মানুষের প্রতি দানের হাত প্রসারিত করবে। কিন্তু কয়জনে দান সদকা করছেন। আমরা চেষ্টা করেছি সবার সহযোগীতায় কিছু অসহায় মানুষের মুখে হাসি ফুটাতে। পথচারীদের জন্য যে ইফতারের আয়োজন চলমান আছে। সকলের সহযোগিতায় আমরা আশা করছি আমাদের এই কার্যক্রম পুরো রমজান মাস ব্যাপি চলমান থাকবে।প্রত্যেকে যদি সামাজিক দায়বদ্ধতা থেকে এই সব অসহায়, সুবিধাবঞ্চিত মানুষদের পাশে এসে দাড়াই তাহলে আগামীতেও এই মানুষ গুলোর মুখে হাসি অব্যাহত থাকবে।

 284 total views

শেয়ার করে ছড়িয়ে দিন
  • 13
    Shares
error: Content is protected !!